দেশবাসীর প্রতি-পীর সাহেব চরমোনাই-এর আহ্বান

এম এ করিম, গোমস্তাপুর প্রতিনিধি :: আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে  পীর সাহেব চরমোনাই-এর আহব্বান।দুর্নীতি দুঃশাসন সন্ত্রাস ও মাদক মুক্ত কল্যাণরাষ্ট্র প্রতিষ্ঠায় জাতীয় সংসদীয় নির্বাচনে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ পীর সাহেব চরমোনাই-এর জনগনের প্রতি আহব্বান।ইসলামের দৃষ্টিতে ভোট একটি আমানত তুলে ধরে চরমোনাই বলেন,অযোগ্য লোককে ভোট দেওয়া আমানতের সুস্পষ্ট খিয়ানত ও বিশ্বাসঘাতকতা।ইসলামের উপকার বা নির্দেশনাকেই মূল বিবেচনায় না রেখে শুধুমাত্র ভদ্রতা, লোভ-লালসা কিংবা কোন বিশেষ দলের বশ্যতাবশত যদি ভোট দেওয়া হয় তাহলে তা নিজেকে গুনাহের দ্বারা ধ্বংস করা ছাড়া আর কিছু নয়।জান-মাল দিয়ে ভোটযুদ্ধে ঝাপিয়ে পড়ার আহব্বান করে বলে,জান-মালের কুরবানি, সংগ্রাম-আন্দোলন,কলমের যুদ্ধ,ভোট প্রদান সবই একটি জরুরী অনুষঙ্গ।ইসলাম বিজয়ের দ্বীন।বিশ্বব্যাপী ইসলামের বিজয় কেতন উড়ানোই মুসলমানদের সর্বশেষ(ইহকালীন)লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য।বর্তমান সময়ে এ লক্ষ্যে পোঁছাতে খুবই গুরুত্বের সাথে ভোট প্রদানকে সামনে রাখতে হবে ও এ লক্ষ্যে কাজ করে যেতে আহব্বান।সুষ্ঠু, অবাধ ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের জন্য মানুষ তার ভোটাধিকার প্রয়োগ করে ভালো দল এবং সৎ ও যোগ্য প্রার্থীকে নির্বাচিত করে প্রতিহিংসার রাজনৈতিক অবসান ঘটবে এবং মানুষ ভোটের অধিকার ফিরে পাবে। ধনী-দরিদ্রের বৈষম্যদূর হয়ে সামাজিক সম্প্রীতি প্রতিষ্ঠিত হবে।জুলুম,নির্যাতন বন্ধ হবে।কৃষক,শ্রমিক মেহনতি মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন ঘটবে।শিক্ষাঙ্গনে শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ তৈরী হবে।উৎপাদনমুখী টেকসই প্রতিষ্ঠান গড়ে ওঠবে।বেকার সমস্যার সমাধান হবে। রাজনৈতিক হানাহানি, খুন-গুম বন্ধ হবে।সর্বোপরি সৃষ্টির সেরা বনিআদম মানুষ তার বিবেক বুদ্ধি দিয়ে আমানত হিসাবে তার ভোট দিয়ে সৎ ও যোগ্য প্রার্থীকে নির্বাচিত করবে।এবার একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ব্যাতিক্র ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঘোষিত (৩০০)আসনেই চুড়ান্ত প্রার্থী মনোনীত।যা তালিকা অনুযায়ী, রংপুর বিভাগে-৩৩টি আসনে প্রার্থী,রাজশাহী বিভাগে ৩৯টি,খুলনা বিভাগে ৩৬টি,বরিশাল বিভাগে ২১টি,ঢাকা বিভাগে ৯৪টি,সিলেট বিভাগে,১৯টি,চট্রগ্রাম বিভাগে৫৮ টি আসনে প্রার্থী চুড়ান্ত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ জাতীয় আরো খবর..

ফেসবুকে আমরা...