ক্বারী আব্দুল কাদের ফারুকী (রহঃ)’র জানাযা সম্পন্ন

মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম :: আশুগঞ্জ শরীফপুর কাদেরীয়া দরবার শরীফের পীর শাহ সূফী আলহাজ্ব ক্বারী হযরত মাওলানা আব্দুল কাদের ফারুকী (রহঃ) গতকাল বিকাল ৪:২০ ঘটিকার সময় তার নিজ বাসস্থান আশুগঞ্জ শরীফপুরে তার প্রতিষ্ঠিত দরবার শরীফে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্না ইলাইহি রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ১০২ বৎসর। স্ত্রী, ১০ ছেলে/০২ মেয়ে নাতি-নাতনি সহ অংসখ্য অগনিত ভক্তবৃন্দ ও গুনগ্রাহি রেখেগেছেন।

আজ বিকাল ৩:০০ ঘটিকায় হুজুরের দুইটি নামাজে জানাযা শরীফপুর ঈদগাহ মাঠে অনুষ্ঠিত হয়। প্রথমটিতে ইমামতি করেন হুজরের সন্তান পীরজাদা মুফতি সামছুল হক ফারুকীর ও দ্বিতীয়টিতে ইমামতি করেন হুজরের খলিফা পীরে তরিকত মাও. নূরুল ইসলাম আল ক্বদরী।

হুজুরের নামাজে জানাযায় উপস্তিত ছিলেন বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সভাপতি পীরে তরিকত অধ্যাপক মুফতি নাজিম উদ্দিন, সিনিয়র সহ-সভাপতি পীরে তরিকত মাও. নূরুল ইসলাম, সহ-সভাপতি অধ্যক্ষ মহিউদ্দিন মোল্লা, সাংগঠনিক সম্পাদক মাও. মিজানুর রহমান, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক পীরে তরিকত ছৈয়দ জাফরুল কুদ্দুস গালেব, তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক মুফতি গিয়াস উদ্দিন তাহেরী, বিজয়নগর উপজেলা ইসলামী ফ্রন্টের সভাপতি পীরে তরিকত মাও. আবু বককর আনসারী, স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদের সদস্য সচিব অধ্যক্ষ শাহজাহান আলম সাজু, শরীফপুর ইউপি চেয়ারম্যান সাইফ উদ্দিন চৌদ্দিরী শাফী, ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম, মাও. আব্দুল মান্নান, যুবনেতা মাওলানা সেলিম হোসাইন, ইসলামী ফ্রন্ট আশুগঞ্জ উপজেলার সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মনিরুজ্জান হানাফী, ওলামায়ে আহলে সুন্নাত ওয়াল জামা’আত ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সাধারণ সম্পাদক মুফতি সায়েদুর রহমান রেজবী, ছাত্রসেনা কেন্দ্রীয় পরিষদের দাওয়া বিষয়ক সম্পাদক ছাত্রনেতা মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, ছাত্রসেনা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা এমদাদুল হক বকশী, যুবসেনা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা রেজাউল করিম, ছাত্রসেনা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সভাপতি মুহাম্মদ ইকবাল হোসাইন শাহ বাবুল, ছাত্রসেনা আশুগঞ্জ উজেলার সভাপতি হাফেজ আতাউর রহমান মোল্লা, অধ্যাপক মনির হোসেন, মাও. আব্দুল কুদ্দুস, ছাত্রসেনা ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরদ উপজেলার সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম রিফাত সহ ইসলামী ফ্রন্ট, যুবসেনা ও ছাত্রসেনা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ও উপজেলার নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন।

উপস্থিত ওলামায়ে কেরাম ও নেতৃবৃন্দ গন তাদের বক্তব্যে বলেন শাহ সূফী আলহাজ্ব ক্বরী হযরত মাওলানা আব্দুল কাদের ফারুকী (রহঃ)’র যেমন আধ্যাতিক জগতের মানুষ ছিলেন ঠিক তেমনি একজন আদর্শ শিক্ষক ও ছিলেন। তিনি তার দরবার শরীফে প্রায় ৮০ বৎসর যাবৎ মহান আল্লাহ তায়ার ঐশী বানী পবিত্র কোনআনুল কারিম অত্যান্ত যত্নসহকারে শিক্ষা দিয়ে আসছিলেন। আকস্মিক মৃত্যুতে বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট, যুবসেনা ও ছাত্রসেনা গভীর শোকাহত। বক্তা গন শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর শোক ও সমবেদনা জ্ঞাপন করে হুজুরের বিদেহী আত্তার মাগফিরাত কামনা করেন। জানাযার শুরুতে ও শেষে হুজুরের পরাকালিন জীবনের মঙ্গল এবং শোক সন্তপ্ত পরিবার যেন অতিদ্রুত সময়ে এ শোক কাটিয়ে পূণরায় তাদের যথারীতি জীবন যাপন শুরু করতে পারেন এই কামনায় দয়াময় আল্লাহ তায়ালার নিকট প্রার্থনা করে বলেন আল্লাহ তায়ালা যেন হুজুরকে জান্নাত আলা দান করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ জাতীয় আরো খবর..

ফেসবুকে আমরা...